১৮ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
বৃহস্পতিবার | রাত ৪:৩৬
Search
Close this search box.
Search
Close this search box.
মুন্সিগঞ্জে ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা, ৭ দিনেও উদঘাটন হয়নি হত্যা রহস্য
খবরটি শেয়ার করুন:

মুন্সিগঞ্জ, ৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩, নিজস্ব প্রতিনিধি (আমার বিক্রমপুর)

কুপিয়ে হত্যার ৭ দিন পেরিয়ে গেলেও মুন্সিগঞ্জের শ্রীনগরের জশুরগাঁও এলাকায় ব্যবসায়ী সত্যরঞ্জন দত্ত হত্যাকান্ডের রহস্য এখনও উদঘাটন হয়নি। ঘটনার পর একাধিক সন্দেহভাজন ব্যক্তিকে জিজ্ঞাসাবাদ করলেও হত্যাকান্ডের কোনো ক্লু উদ্ধার হয়নি। এমনকি কে বা কারা এবং কি কারনে এই ব্যবসায়ীকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করেছে তার কোনো তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ করতে পারেনি পুলিশ।

তবে হত্যার রহস্য উদঘাটনের জন্য একাধিক বিষয়কে প্রধান্য দিয়ে পুলিশের তদন্ত অব্যাহত রয়েছে বলে পুলিশ জানিয়েছে।

অন্য দিকে, হত্যাকন্ডের ৭ দিন পেরিয়ে গেলেও এখনও পর্যন্ত হত্যার রহস্য উদঘাটন না হওয়ায় নিহত ব্যবসায়ীর পরিবার রয়েছে উদ্বেগ ও উৎকণ্ঠায়।

পাশাপাশি শ্রীনগর উপজেলার হিন্দু সম্প্রদায়ের মানুষ আতঙ্কের মধ্যে দিনযাপন করছে বলে জানিয়েছেন নিহতের ভাই ও উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক অধীর চন্দ্র দত্ত।

তিনি বলেছেন, ঘটনার ৭ দিনেও কে বা কারা এবং কি কারনে তার ভাইকে হত্যা করেছে তার রহস্য উদঘাটন করতে পারেনি পুলিশ। এর ফলে উদ্বেগ, উৎকণ্ঠা ও আতঙ্কের মধ্যে দিনযাপন করতে হচ্ছে তাদের।

শ্রীনগর উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি স্বপন কুমার মোদক বলেন, বাড়ির সামনে এমন একটি হত্যাকান্ডের সাথে যারা জড়িত, তাদের সনাক্ত করে দ্রুত আইনের আওতায় আনতে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের প্রতি আহবান জানাচ্ছি।

শ্রীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আমিনুল ইসলাম বলেন, কে বা কারা এবং কি কারনে ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা করেছে তার রহস্য উদঘাটন এবং জড়িতদের সনাক্তের পর গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। বর্তমানে একাধিক বিষয়কে প্রধান্য দিয়ে পুলিশ তদন্ত অব্যাহত রেখেছে পুলিশ।

প্রসঙ্গত: গত ১ ফেব্রুয়ারি রাতে শ্রীনগরের জশুরগাঁও এলাকার বাড়ি সংলগ্ন কবরস্থানের পাশে ব্যবসায়ী সত্যরঞ্জন দত্তকে ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। এ ঘটনায় নিহতের স্ত্রী শিখা রানী দে বাদী হয়ে অজ্ঞাত পরিচয় ব্যক্তিদের আসামী করে শ্রীনগর থানায় মামলা করেছেন।

error: দুঃখিত!