১৩ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
শনিবার | রাত ১১:৪৩
নিজ আলোয় আলো ছড়াচ্ছেন তাজরিয়ান
খবরটি শেয়ার করুন:

মুন্সিগঞ্জ, ২৯ নভেম্বর, ২০২১, শিহাব আহমেদ (আমার বিক্রমপুর)

পুরো নাম, তাজরিয়ান তাসনিম। জন্ম ১৩ জানুয়ারি ২০০০ সালে মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখান উপজেলার মালখানগর ইউনিয়নের আরমহল গ্রামে৷ ছোট বেলা থেকেই গান-আবৃত্তি, বিতর্ক সহ সংস্কৃতি মন্ডলের দিকে ঝোক তার।

২০১৮ সালে মালখানগর ডিগ্রি কলেজে সরকারিভাবে আয়োজিত জাতীয় শিক্ষা সপ্তাহ উপলক্ষে উপজেলা পর্যায়ে দেশত্ববোধক গান, লোকসঙ্গীত ও ইসলামিক সঙ্গীত বিভাগে শীর্ষস্থান লাভ করায় শ্রেষ্ঠত্বের স্বীকৃতি পান তাজরিয়ান।

সিরাজদিখানের তালতলা গোড়াপিপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রাইমারি লেভেল পড়েছেন তাজরিয়ান। হাইস্কুল লেভেল পড়েছেন মালখানগর হাইস্কুলে। এরপর মুন্সিগঞ্জের স্বনামধন্য প্রেসিডেন্ট প্রফেসর ড. ইয়াজউদ্দিন আহমেদ রেসিডেন্সিয়াল মডেল স্কুল এন্ড কলেজে উচ্চ মাধ্যমিক লেভেল পার করেছেন। বর্তমানে ঢাকার ড্যাফোডিল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটিতে হসপিটালিটি এন্ড ট্যুরিজম ম্যানেজমেন্ট বিভাগে পড়ছেন।

৪ সদস্যের পরিবার তাজরিয়ানের। বাবা থাকেন প্রবাসে। মা সিরাজদিখানের নাটেশ্বর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক। বড় ভাই ওয়াসিফ আল মেহরাব দক্ষিণ কোরিয়ায় বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যায়ণরত।

মায়ের অনুপ্রেরণায় নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে চান তাজরিয়ান। নিজের আলো ছড়িয়ে দিতে চান নতুন প্রজন্মের উদ্যোক্তাদের মাঝে৷ হতে চান সমাজের এগিয়ে থাকাদের একজন।

তাজরিয়ান তাসনিম জানান, পড়ালেখা বা আনুষঙ্গিক কাজের পাশাপাশি দৈনিক ৮-১০ ঘন্টা সময় ব্যায় করেন নিজ উদ্যোগে খোলা ২ টি ভিন্ন ব্যবসার পেছনে। বর্তমানে তার এই উদ্যোগ অনলাইনে সীমাবদ্ধ থাকলেও ভবিষ্যতে মুন্সিগঞ্জ ও ঢাকায় বড় পরিসরে আউটলেট করার ইচ্ছা আছে তার। তবে এর জন্য নিজের প্রোডাক্টের মান ধরে রাখতে পারাটাই মুখ্য- এমনটাই মনে করেন তাজরিয়ান। বর্তমানে অনলাইনে অর্ডার নিয়ে কুরিয়ার সার্ভিসের মাধ্যমে সারাদেশে প্রোডাক্ট ডেলিভারি দিচ্ছেন তিনি।

তাজরিয়ান জানান, ফেসবুকে Black (Men’s Wear), Tazrian’s Dressify এবং Tazrian’s Vlog নামে ৩ টি পেজ রয়েছে তার। প্রথম দুটি ব্যবসা পরিচালনার জন্য আর তৃতীয়টিতে ট্রাভেল সহ বিভিন্ন খাবার নিয়ে ভিডিও তৈরি করেন।

তিনি বলেন, ব্যবসা থেকে মাত্র আয় আশা শুরু হয়েছে। আশা করছি, ভবিষ্যতে আরও ভালো করবো। ছেলে ও মেয়ে উভয়ই আমার পণ্যের ক্রেতা। এর মধ্যে উঠতি বয়সি ক্রেতা বেশি। তাদের মধ্যে চলতি ফ্যাশনের Western ড্রেসের চাহিদাই বেশি।

তিনি জানান, বর্তমানে তার কাছে ২৫০ টাকা থেকে শুরু করে বিভিন্ন পণ্য রয়েছে। পোষাকের পাশাপাশি রয়েছে জুতা, জুয়েলারি, কসমেটিকস সহ বিউটি প্রোডাক্টস।

তাজরিয়ান বলছেন, আমি একজন ‘সাকসেসফুল বিজনেস উইম্যান’ হতে চাই। সে লক্ষ্যেই নিজেকে নিয়ে ব্যস্ত রয়েছি।

সময় পেলেই রবীন্দ্র সংগীত, ফোক, বাংলা ব্যান্ড, লালনগীতি চর্চার শখ রয়েছে তাজরিয়ানের। ফেইসবুকে একটি পেজও রয়েছে তার। সেখানে প্রায়ই দেখা যায় গান গাইছেন তাজরিয়ান। বয়স ৩ বছর বয়সেই প্রথম স্টেজ শো। মুন্সিগঞ্জের পরিচিত সঙ্গীতগুরু বিক্রমপুর কে বি ডিগ্রি কলেজের অধ্যাপক এজাজ স্যারের কাছে হাতে খড়ি তার। ইছাপুরা অগ্নীবিণা ললিতকলা একাডেমিতে শিখেছেন গান।

error: দুঃখিত!