১লা ডিসেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
বুধবার | রাত ১২:৪০
মন্ত্রী হওয়ার গুঞ্জনে এমিলির নাম!
খবরটি শেয়ার করুন:

নতুন সরকারের মন্ত্রিসভায় নারী প্রতিনিধিত্ব বাড়ার সম্ভাবনা রয়েছে। ওয়ান ইলেভেন পরবর্তী নবম জাতীয় সংসদের পর গঠিত সরকারে নারী প্রতিনিধিত্ব আশানুরুপ থাকলেও দশম সংসদের পর চলতি মন্ত্রিসভায় নারী প্রতিনিধিত্ব কমেছে। আসন্ন মন্ত্রিসভায় নারী প্রতিনিধিত্ব বাড়বে বলে আশা করা হচ্ছে। এবার সর্বোচ্চ ২২জন নারী সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন।

নতুন মন্ত্রিসভায় সম্ভাব্য নারীদের মধ্যে সাবেক পররাষ্ট্র মন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ডা. দীপু মণি, চারবারের সংসদ সদস্য ও নবম জাতীয় সংসদের হুইপ সাগুফতা ইয়াসমিন এমিলির নাম আলোচিত হচ্ছে। আসন্ন মন্ত্রিসভায় এ দু’জনকে দেখা যেতে পারে। সংসদে সংরক্ষিত নারী আসনের নির্বাচনের পর আরো একজনকে অর্ন্তভুক্ত করা হতে পারে।

বর্তমানে মন্ত্রিসভায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছাড়াও কৃষিমন্ত্রী বেগম মতিয়া চৌধুরী, জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ইসমাত আরা সাদেক, মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি ও তথ্য প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম রয়েছেন। এর মধ্যে তারানা হালিম সংরক্ষিত নারী আসনের সদস্য। আসন্ন মন্ত্রিসভায় মতিয়া চৌধুরী ও মেহের আফরোজ চুমকির থেকে যাওয়ার বিষয়টি অনেকটাই নিশ্চিত। পরিস্থিতির পরিবর্তন না হলে ইসমাত আরা সাদেকও থাকছেন।
মন্ত্রিসভায় নারী হিসেবে ডা. দীপু মণির ফেরার পাশাপাশি সাগুফতা ইয়াসমিন এমিলি ও মাহাবুব আরা গিনির অর্ন্তভুক্ত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। চারবারের সংসদ সদস্য ও সংসদের সাবেক হুইপ এমিলিকে পূর্ণ মন্ত্রী করা হতে পারে। প্রতিমন্ত্রী হতে পারেন মাহাবু আরা গিনি।

এছাড়া সংরক্ষিত নারী আসনের নির্বাচনের পর একজনকে হুইপ করা হতে পারে। সে ক্ষেত্রে ঢাকা-৪ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য এ্যাডভোকেট সানজিদা খানমের হুইপ হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। মহাজোটের কারনে দু’দুবার নিজ আসনে ছাড় দিয়েছেন তিনি। গত সংসদে তাকে সংরক্ষিত আসনের মহিলা সংসদ সদস্য করা হয়েছিল। এবারও তাকে সংসদে এনে হুইপ করে পুরস্কৃত করার সম্ভাবনা রয়েছে।

প্রসঙ্গত: এবার সর্বোচ্চ ২২জন নারী সরাসরি নির্বাচন করে সংসদ সদস্য হয়েছেন। মন্ত্রিসভা গঠনের ক্ষেত্রে সরাসরি আসনে নির্বাচিত নারী সংসদ সদস্যদেরই প্রাধ্যান্য দেয়া হবে।

বৃহস্পতিবার সংসদ সদস্যদের শপথ অনুষ্ঠিত হবে। আগামী রোববার নতুন মন্ত্রিসভা গঠনের সম্ভাবনা রয়েছে।

error: দুঃখিত!