২১শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ
শুক্রবার | দুপুর ২:৪৯
মুন্সিগঞ্জে ইউপি সদস্য প্রার্থীর দোকান ভাঙচুর
খবরটি শেয়ার করুন:

মুন্সিগঞ্জ, ২৮ অক্টোবর, ২০২১, বিশেষ প্রতিনিধি (আমার বিক্রমপুর)

মুন্সিগঞ্জের শ্রীনগর ‍উপজেলায় ইউপি সদস্য প্রার্থীর দোকান লুটপাট ও ভাঙচুরের অভিযোগ উঠেছে।

গতকাল বুধবার (২৭ অক্টোবর) বেলা ১১টার দিকে উপজেলার ভাগ্যকুল ইউনিয়নের মধ্য কামারগাও ঘোষবাড়ী সংলগ্ন মিন্টু স্টোরে এই ঘটনা ঘটে।

স্থানীয়দের অভিযোগ, সকালে দোকান বন্ধ থাকা অবস্থায় ভাগ্যকুল ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি মিলন খানের ছেলে মেহেদি খানের নেতৃত্বে ৮-৯ জন লোক ও মিস্ত্রী এসে মো. ফালন শেখের ছেলে মো. মিন্টুর দোকান টি ভেঙ্গে দিয়ে চলে যায়।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, একটি টিনের তৈরি দো-চালা পাটাতন দোকানের বেড়া ও খুটি পরে আছে। মাটি খুরে খুটি গুলো তুলে ফেলায় মাটির গর্তগুলো রয়ে গেছে। দোকানের ব্যবহৃত চুলা, ২টি ফ্যান ও একটি ক্যশ বাক্স পরে রয়েছে।

৫নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য প্রার্থী মো. মিন্টু শেখ বলেন, আমি কয়েক বছর ধরে এই ভিটির উপরে দোকান ঘর তুলে ব্যবসা করে আসছি। এই দোকানের উপর নির্ভর করে আমার পুরো পরিবারটি। আজ সকালে আমি ভাগ্যকুল ইউনিয়নের ৫নং ওয়ার্ডের মেম্বার (ইউপি সদস্য) পদে প্রতীক আনতে যাই। আমাকে মোরগ প্রতীক দেওয়া হয়। সকালে দোকান বন্ধ রেখে আমি উপজেলায় গেলে এই সুযোগে আমার দোকান ভেঙ্গে  দিনের বেলায় সবার চোখের সামনেই আমার প্রায় দেড় লক্ষ টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।

অভিযুক্ত মেহেদী বলেন, দোকানের সকল মালামাল আমার এদিকে ফাকা যায়গায় রাখা আছে। আমার জায়াগায় সে দোকান তুলে রাখছিল তাকে আমি কয়েকবার ওয়ার্নিং দেয়ার পরেও সে সেখান থেকে দোকান সরিয়ে নেয়নি। দোকান ভেঙ্গে লুটপাটের ব্যাপারে জানতে চাইল তিনি একটি মিটিংএ আছি বলে ফোন রেখে দেয়ে।

শ্রীনগর থানার ওসি (তদন্ত) মো. কামরুজ্জামান বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। এটি নির্বাচনী কোন সহিংসতা নয়। তাদের ব্যাক্তিগত বিরোধ। ঘটনার সত্যতা পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

error: দুঃখিত!