২৪শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
সোমবার | ভোর ৫:০৮
Search
Close this search box.
Search
Close this search box.
মুন্সিগঞ্জের চরাঞ্চলে আ. লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে প্রাণ গেছে একজনের
খবরটি শেয়ার করুন:

মুন্সিগঞ্জ, ১৩ এপ্রিল ২০২৪, নিজস্ব প্রতিনিধি (আমার বিক্রমপুর)

মুন্সিগঞ্জ সদরের চরাঞ্চলের চরকেওয়ার ইউনিয়নের ছোট মোল্লাকান্দি এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে পারভেজ খান (২০) নামের এক আওয়ামী লীগ কর্মীর প্রাণ গেছে। সে ওই এলাকার পলাশ খানের পুত্র এবং মুন্সিগঞ্জ ৩ আসনের সংসদ সদস্য মোহাম্মদ ফয়সাল বিপ্লবের অনুসারী।

গুলিবিদ্ধ অবস্থায় অতিরিক্ত রক্তক্ষরণের কারণে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়েছে বলে মুন্সিগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল ও স্বজনদের সূত্রে জানা গেছে।

এ ঘটনায় একজন গুলিবিদ্ধসহ আহত হয়েছেন অন্তত আরও ৫ জন।

অপর গুলিবিদ্ধ রাব্বি আহমেদকে (১৯) মুন্সিগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। বাকি আহতদের মুন্সিগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, স্থানীয় আধিপত্য নিয়ে ওই এলাকার আহম্মেদ গ্রুপ ও মামুন গ্রুপের মধ্যে দীর্ঘ দিন ধরে বিরোধ চলে আসছিলো। ওই দুই গ্রুপই আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত।

শনিবার ভোরে আহম্মেদ গ্রুপের লোকজন মামুন গ্রুপের লোকজনের বাড়িঘরে হামলা চালায়। এ সময় উভয় পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধে। এতে দুইজন গুলিবিদ্ধসহ আহত হয় অন্তত ৬ জন।

মুন্সিগঞ্জ সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিনুল ইসলাম জানান, সংবাদ পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠাই ও ঘটনাস্থল পরিদর্শন করি। এ ঘটনায় দুইজন গুলিবিদ্ধের মধ্যে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে পারভেজ খানের মৃত্যু হয়েছে বলে শুনেছি। এসময় উভয়পক্ষের কয়েকটি বাড়িঘর ভাংচুরের তথ্যও জানান তিনি।

ওসি জানান, ওই দুই গ্রুপই স্থানীয় আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত। আহম্মেদ গ্রুপ বর্তমান মুন্সিগঞ্জ ৩ আসনের সংসদ সদস্য মোহাম্মদ ফয়সাল বিপ্লবের অনুসারী এবং মামুন গ্রুপ সাবেক সংসদ সদস্য এডভোকেট মৃণাল কান্তি দাসের অনুসারী। নিহত পারভেজ মুন্সিগঞ্জ ৩ আসনের সংসদ সদস্য মোহাম্মদ ফয়সাল বিপ্লবের অনুসারী বলেও জানান তিনি।

error: দুঃখিত!