২৫শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
শনিবার | ভোর ৫:৩০
মুন্সিগঞ্জ: বালু ব্যবসার সুবিধায় সেতুই ভেঙে দিলো সিন্ডিকেট
খবরটি শেয়ার করুন:

মুন্সিগঞ্জ, ৯ সেপ্টেম্বর, ২০২১, জসীম উদ্দীন দেওয়ান (আমার বিক্রমপুর)

বালু ব্যবসার সুবিধার জন্য মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখানের পোড়াগঙ্গা খালের দুটি সেতু ভেঙে দিয়েছে বালু ব্যবসায়ী সিন্ডিকেট। ফলে দুর্ভোগে পড়েছেন দুই হাজারের বেশি মানুষ।

এদিকে জরুরি ভিত্তিতে সেতু দুইটি সংস্কার করার জন্যে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নির্দেশ দিলেও তা এক মাসেও শুরু হয়নি।

জানা গেছে, মুন্সিগঞ্জের সিরাজদিখানের পোড়াগঙ্গা খালের উপরে তৈরি করা এই বাশের পুল দিয়ে যাতায়াত করতো মধ্যপাড়া ও লৌহজংয়ের খিদিরপাড়া ইউনিয়নের প্রায় পঞ্চাশ হাজার মানুষ। কিন্তু বর্ষায় পানি বেড়ে যাওয়ায় এই পুল ভেঙে দিয়েছে বালু ব্যবসায়ীরা। এর জন্য বালুবাহী বাল্কহেড চক্রকে দায়ী করছেন সংশ্লিষ্ট এলাকার বাসিন্দারা।

এলাকাবাসী জানান, আগে এখানে একটি বেইলী ব্রিজ থাকলেও দুই বছর আগে বালুবাহী বাল্কহেডের ধাক্কায় সেটি ভেঙে যায়। এরপর বাঁশের পুল দিয়েই তারা চলাচল করতো। এখন রাতের আধারে সেই পুলও ভেঙে দেয়ায় লোকজনকে বাধ্য হয়ে নৌকা ব্যবহার করতে হচ্ছে।

এছাড়া, প্রতিদিন শত শত বালুবাহী কোস্টার বডি চলাচল করছে নির্বিঘ্নে। ভাঙনসহ নানা ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে খাল পাড়ের মানুষ।

স্থানীয় ইউপি সদস্য বলছেন, পাঁচদিনের জন্য এই পুলটি সড়ানো হয়েছে। যদিও এক মাস হলেও কেনো পুলের সংস্কার হয়নি জানতে চাইলে কোন উত্তর দিতে পারেননি তিনি।

সিরাজদিখান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ফয়েজুল ইসলাম বলছেন, স্থানীয় চেয়ারম্যানকে জরুরি ভিত্তিতে পুল দুটি ঠিক করতে বলা হয়েছে ।
এর আগে ২০১৭ সালে বালুবাহী বাল্কহেডের ধাক্কায় আগের সেতুটি ভেঙে যায়। এরপর একই স্থানে আরেকটি নতুন সেতু হবার পর সেটিও ভেঙ্গে দিয়েছে বাল্কহেড চক্র। এসব অবৈধ বাল্কহেডের ব্যপারে এখনই ব্যবস্থা নেওয়া উচিত বলেই মনে করছে সংশ্লিষ্ট সবাই।

error: দুঃখিত!