১৮ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
মঙ্গলবার | ভোর ৫:২২
Search
Close this search box.
Search
Close this search box.
মুন্সিগঞ্জে বজ্রপাতে ৩ জনের মৃত্যু
খবরটি শেয়ার করুন:

মুন্সিগঞ্জ, ১০ সেপ্টেম্বর, ২০২২, নিজস্ব প্রতিনিধি (আমার বিক্রমপুর)

মুন্সিগঞ্জের টংগিবাড়ী উপজেলায় বজ্রপাতে তিন শিশু মারা গেছে।

আজ শনিবার বেলা একটার দিকে উপজেলার ধামারন এলাকার একটি বিলে এ ঘটনা ঘটে।

এই শিশুরা সম্পর্কে মামাতো–খালাতো ভাই–বোন। তারা বিলে শাপলা তুলতে গিয়েছিল। এ সময় আহত হয়েছে এক কিশোর।

মৃত শিশুরা হলো, পশ্চিম ধামারন এলাকার মমিন আলীর ছেলে রবিউল হাসান (১৬), সোনারং এলাকার সাইফুল ইসলামের মেয়ে সানজিদা আক্তার (৯) ও একই এলাকার কামাল হোসেনের ছেলে মো. লামীম (১২)। আহত কিশোরের নাম সিফাত হোসেন (১৫)।

মৃত রবিউলের বড় ভাই মো. মিঠু বলেন, ‘সানজিদা ও লামীম আপন খালাতো ভাই–বোন। ওরা দুজন আমার দুই চাচাতো বোনের ছেলে-মেয়ে। ওরা দুজন পাশের গ্রাম সোনারং থেকে কাঠাদিয়া-শিমুলিয়া ইউনিয়নের ধামারন এলাকায় নানাবাড়িতে বেড়াতে এসেছিল। আমার ভাইসহ চারজন বাড়ির পাশের একটি বিলের হাঁটুপানি থেকে শাপলা তুলছিল। এ সময় আকাশে মেঘ ডাকছিল। বেলা একটার দিকে ওদের তিনজনের সঙ্গে শাপলা তুলতে যাওয়া সিফাত বাড়িতে দৌড়ে আসে। আমাদের বলে তিনজন বিলের পানিতে পড়ে আছে। আমরা সেখানে যাই। ওদের পানিতে পড়া অবস্থায় দেখি। সেখান থেকে হাসপাতালে নিয়ে যাই।’

মুন্সিগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগের চিকিৎসক এ এস এম ফেরদৌস জানান, হাসপাতালে আনার আগেই তাদের মৃত্যু হয়েছে। কীভাবে মারা গেছে, বলা যাচ্ছে না। পরিবারের লোকজন বলছে, বজ্রপাতে শিশুরা মারা গেছে।

টংগিবাড়ী থানার ওসি রাজিব খান জানান, যেহেতু বজ্রপাতে ওই তিন শিশুর মৃত্যু হয়েছে, তাই পরিবারের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ময়নাতদন্ত ছাড়াই লাশ হস্তান্তর করা হয়েছে।

error: দুঃখিত!