২২শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
শুক্রবার | বিকাল ৪:২২
পদ্মা সেতুর অব্যবহৃত জমিতে খামার করবে সেনাবাহিনী
খবরটি শেয়ার করুন:

মুন্সিগঞ্জ ২৫ অক্টোবর, ২০১৯, বিশেষ প্রতিনিধি (আমার বিক্রমপুর)

পদ্মা বহুমুখী সেতু নির্মাণ প্রকল্পের অব্যবহৃত ২ হাজার ১৫৮ দশমিক ৫৩ একর জমিতে খামার করবে সেনাবাহিনী, যেখানে ৭০ হাজার গরু-ছাগল লালন পালন করা হবে।  

এ নিয়ে বুধবার রাজধানীর সেতু ভবনে সেতু কর্তৃপক্ষ ও সেনাবাহিনীর মধ্যে একটি চুক্তি স্বাক্ষর হয়েছে। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

মন্ত্রী বলেন, পদ্মা বহুমুখী সেতু নির্মাণ প্রকল্পের ৫, ৬, ১২ ও ১৩ নম্বর ব্লকে মোট ২ হাজার ১৫৮ দশমিক ৫৩ একর জমি ব্যবহার অধিকারী হিসেবে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর কাছে হস্তান্তর করার পরে তাতে একটি কম্পোজিট মিলিটারি ফার্ম গড়ে তোলা হবে।

“প্রকল্পে ৭০ হাজার প্রাণির একটি ডেইরি ফার্ম থাকবে। প্রতিদিন আনুমানিক সেখান থেকে ৫০ হাজার লিটার থেকে ৬০ হাজার লিটার দুগ্ধ উৎপাদন করা হবে। বিফ ফার্ম থেকে প্রতি বছর আনুমানিক ৫ লাখ ৪০ হাজার কেজি গরুর মাংস উৎপাদিত হবে।”

বাংলাদেশের ব্ল্যাক বেঙ্গল বিশ্বব্যাপী সমাদৃত হওয়ায় এই ছাগলের জাত ধরে রাখতে এই খামারে একটি ‘গোট ফার্ম’ গড়ে তোলা হবে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, কম্পোজিট মিলিটারি ফার্মে একটি অত্যাধুনিক ল্যাবরেটরি স্থাপন করা হবে, যেখানে ষাড়, গরু, মহিষ ও ব্ল্যাক বেঙ্গলের সীমন সংগ্রহ করে অন্যান্য মিলিটারি ফার্ম এবং বাংলাদেশের কৃষক ও খামারিদের কাছে কম দামে বিক্রি করা হবে।

সার্বিকভাবে ডেইরি ফার্ম, বিফ ফার্ম, ব্ল্যাক বেঙ্গল গোট ফার্ম, মহিষ ফার্ম ও ব্রিডিং সেন্টারে অনেক মানুষের কর্মসংস্থান হবে।

অনুষ্ঠানে বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষের পক্ষে পরিচালক (প্রশাসন) মো. রেজাউল হায়দার এবং বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর পক্ষে ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. মামুন অর রশিদ সমঝোতা স্মারকটি স্বাক্ষর করেন।

error: দুঃখিত!