কাঠালবাড়ি ঘাট স্থানান্তর, ‘শিমুলিয়া-বাংলাবাজার’ নতুন নৌরুট

মুন্সিগঞ্জ, ১৬ নভেম্বর, ২০২০, বিশেষ প্রতিনিধি (আমার বিক্রমপুর)

পদ্মা সেতুর নদী শাসনের কাজে মাদারীপুরের কাঠালবাড়ি ঘাটটি বাংলাবাজার নামক নতুন স্থানে স্থানান্তর করা হয়েছে।

এখন থেকে মুন্সিগঞ্জের লৌহজং শিমুলিয়া-কাঠালবাড়ি নৌরুটের পরিবর্তে শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটে ফেরি সহ সকল নৌ-যান চলাচল করবে। ইতিমধ্যে বাংলাবাজার ঘাটে দুটি ফেরিঘাট স্থাপন করা হয়েছে। সোমবার সকাল থেকে নতুন নৌরুটে ফেরি চলাচল করছে।

কাঠালবাড়ি ঘাট থেকে নতুন ঘাটটি আধা কিলোমিটার উজানে। এতে ফেরি চলাচলে আরো ১০-১৫মিনিট বেশি সময় লাগবে বলে জানিয়েছে অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্পোরেশন (বিআইডব্লিউটিসি) কতৃপক্ষ।

তবে লঞ্চ ও স্পীডবোট ঘাট স্থানান্তরে আরো কয়েকদিন সময় লাগবে।

বিআইডাব্লিউটিএ শিমুলিয়া লঞ্চঘাটের পরিদর্শক সোলেমান জানান, বাংলাবাজার ঘাট এখনো পুরোপরি স্থাপন হয়নি। তাই আগামী কিছুদিন শিমুলিয়া-কাঠালবাড়ি রুটেই লঞ্চ চলাচল করবে। এক সপ্তাহের মধ্যে বাংলাবাজার ঘাটে লঞ্চঘাট স্থাপন হয়ে গেলে নতুন রুটে লঞ্চ চলবে৷  বর্তমানে পদ্মা পারাপারে লঞ্চে সময় লাগে ৫০-৫৫মিনিট। নতুন ঘাটে যেতে ৫-১০মিনিট সময় বেশি লাগবে।

বিআইডব্লিউটিসির শিমুলিয়া ঘাট ব্যবস্থাপক (বানিজ্য) সাফায়েত আহমেদ বলেন, বাংলাবাজার ঘাটে ইতিমধ্যেই দুটি ফেরিঘাট স্থাপন করা হয়েছে। শিমুলিয়া-বাংলাবাজার নৌরুটে বর্তমানে ছোট-বড় মিলিয়ে ১২টি ফেরি চলাচল করছে। পদ্মা সেতুর নদী শাসনের কাজে নতুন স্থানে ঘাট স্থানান্তর করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ২০১৭ সালের ১৫ ফেব্রুয়ারি কাওড়াকান্দি ঘাট স্থানান্তর করে কাঁঠালবাড়িতে স্থাপন করা হয়েছিলো। তখন মাদারীপুর জেলার শীবরচরের এ ঘাটের নামকরণ করা হয় ইলিয়াস আহমেদ ঘাট। এখনও ইলিয়াস আহমেদ ঘাট নামকরণই থাকবে।

আপনার মন্তব্য জানান...

error: দুঃখিত!